সত্যি ভালবাসতাম

tumblr_mf92d98hwp1r91wa7o1_1280

এইমাত্র আজান দিল । ভোরের আজান । বালিশের পাশে রাখা সেল ফোনটা নিলাম । ৫ টা ৪০ বাজে ।
গতকালের ঘটনার পর থেকে একটু আপ সেট আমি । এমনিতে আমি খুব চঞ্চল আর আমুদে । যেখানেই যাই না কেন সবাইকে মাতিয়ে রাখি । এটা আমার ছোটবেলার অভ্যাস ।
কিন্তু কাল তোমাকে দেখার পর পুরনো ক্ষতগুলো নতুন করে বুকে জেগে উঠছে কেন ?
প্রায় ৩ বছর পর তোমার সাথে দেখা ।
সেই জাতীয় জাদুঘরের সামনে ।
আমি তোমাকে দেখি নি । তুমিই আমাকে দেখে ডাক দিলে………শ্রাবন ।
আমি চোখ ফিরে তাকালাম……। সেই তুমি ! যাকে একনজর দেখার জন্য প্রতিদিন ধানমণ্ডি থেকে ছুটে যেতাম মালিবাগ । সেই তুমি…। যার বুকে না ঘুমালে আমার ঘুম আসত না ।

মুখে মৃদু হাসি নিয়ে বললাম, কেমন আছ? বিদেশ থেকে কবে এসেছ ?
এইতো ৫ দিন হল । তুমি আমার দিকে অবাক চোখে তাকিয়ে বললে ।
কাকাবাবু কেমন আছে ?
বাবা নেই । মারও শরীরটা খারাপ । মাকে দেখতেই দেশে আসা ।
আর তোমার ছোটো ভাইটা ?
ও এখন আমার সাথে কানাডা থাকে । তোমার কি খবর ? এখনও সেই আগের মতই নাদুস নুদুস । তুমি হা হা করে হেসে উঠলে ।

আমি জোর করে বুকের ভেতরের কান্নাটাকে গিলে ফেলি । বলি, তুমিও আগের মত আছ ? সেই হাসি । সেই চোখ ।
শ্রাবণ, চাইলেই সব কি বদলান যায় ?
কি জানি ! আমি উদাস হয়ে বললাম ।
এখন কি করছ? জব?
হুম । একটা টি ভি স্টেশন এ কাজ করি ।
বাহ! তোমার স্বপ্ন ছিল, স্বপ্ন পূরণ হল ।
হয়ত ।
হয়তো কেন বলছ ? মিডিয়াতে কাজ করা নিয়েই আমাদের মাঝে ব্রেক আপ হল ।

আমার চোখের সামনে তখন একে একে সব ভেসে উঠতে লাগলো ।

আমি আর তুমি একটা মঞ্চ নাটকের দলে কাজ করতাম । একটা সময় ভালো লাগে তোমায় । প্রতিদিন কথা, টি এস সি তে আড্ডা । দুষ্টামি । একদিন তোমাকে বলেই ফেললাম ভালবাসি ।
একটা ছেলে হয়ে ছেলে ছেলেকে ভালবাসব এটা সপ্নেও ভাবিনি । কিন্তু কিভাবে যে কি হয়ে গিয়েছিল সে প্রশ্নের উত্তর আজো পাইনি ।
কত রাত দুজন কথা বলে পার করে দিয়েছি তার ঠিক নেই । যেদিন তোমায় প্রথম প্রপোজ করি সেদিন আমার পরনে ছিল লাল টি শার্ট । বুকে লেখা ছিল…dont break my heart
সেদিন তোমাকে ২০ টা লাল গোলাপ দিয়ে বলেছিলাম, ভালবাসি ।
তুমি কিছু বললে না । আমাকে জড়িয়ে গাছের আড়ালে নিয়ে ঠোঁটে আলতো চুমু খেলে । ভাগ্যিস রাত ছিল । তাই কেও দেখে নি ।
এরপর দুটো টোনার একসাথে পথ চলা, স্বপ্ন দেখা শুরু ।

কিন্তু বাধ সাধল আমার একগুয়েমি । অহংকার । আসলেই কি আমার দোষ বেশী ছিল ?
তোমার কি দোষ ছিল না ? যখন একা হই নিজেকে জিজ্ঞেস করি । উত্তর পাই না ।

তোমার কথায় বাস্তবে ফিরে আসি । চল চা খাই ।
তোমার মুখে সেই আগের মত খোঁচা খোঁচা দাড়ি । আমি পাশ থেকে লুকিয়ে দেখি । তোমার থুতনির দাড়ি। তোমার কালো ফ্রেমের চশমা । তোমার বাম চোখের ভুরুর কাটা দাগ ।
তুমি আমায় বললে, তোমার বয় ফ্রেন্ড কি করে ?
নেই ।
কি বল ? তুমি মিডিয়া তে কাজ করো । আর বয় ফ্রেন্ড নেই ?
না নাই । এখন শরীর খুঁড়ে খুঁড়ে সুখ খুজি । মন খুজি না ।
বাহ ! ভালই বললে ………। মামা দুইটা চা দেন, চা ওয়ালাকে বললে তুমি ।
একটা চিনি ছাড়া ………আমি বললাম ।
এখনও চিনি খাও না ? তুমি অবাক হয়ে বললে ।
হুম ।

আমার বয় ফ্রেন্ড আছে । আসলে ও কানাডিয়ান । আমার সাথেই আসছে বাংলাদেশে । ও এখন গুলশান থেকে এখানে আসছে । ওর জন্যই অপেক্ষা । ওর নাম ইভান । আমায় আনেক ভালবাসে ।
ও । তাই । ভালত । তুমি যেমন চেয়েছিলে ।
তুমি কি সুখি হয়েছ ? চা এ চুমুক দিয়ে বললে ।
আমিতো সুখ খুজি নি । এখনও খুজি না । জীবন যাপনের জন্য জীবন কে উপভোগ করি ।
সেই আগের মত বেখেয়ালি কথা বার্তা । তুমি হাসলে ।
তা বলতে পার । আমি বোধয় এমনই । বুঝলে জয় ?
যেদিন তুমি আমাকে ফিরিয়ে দিয়ে চলে গেলে , আমি সেদিন আনেক কেঁদেছিলাম ।
আমি জানি । অপরাধির মত বললাম। রনি আমাকে সব বলেছিল ( রনি আমাদের বন্ধু )
এত কষ্ট কেন দিলে আমায় ? শ্রাবণ ।
আমি দাঁতে ঠোঁট কামড়ে বলি, আমি খুব খারাপ হয়ত ।
কি জানি ? আজ ভালো খারাপ এর হিসেব করেও লাভ নেই ।
তা ঠিক বলেছ । তুমিত সুখি ! তাই না !

জয়ের সেল ফোন বেজে উঠলো । রিসিভ করে জয় বলল, evan, plz wait in front of national museum gate…I am coming honey .
জয়ের দিকে তাকিয়ে বললাম, ইভান চলে এসেছে বোধয় । তাই না ?
হুম । তুমি করুন চোখে আমার দিকে তাকালে ।

ঠিক আছে । যাও ।
তোমার সেল নম্বরটা দেবে ?
আমি বললাম, না ।
ওকে তুমি যা ভালো মনে করো ।
আমার দিকে ডান হাত বাড়িয়ে আমার ডান হাত ধরলে তুমি । সেই হাত……। যে হাত ছোঁয়ার জন্য পাগল ছিলাম আমি ।
আসি । ভালো থেক । নিজেকে কষ্ট দিও না । আমি জানি তুমি অনেক অভিমানি । কষ্ট দাও নিজেকে , অন্যকেও । পারলে কাওকে খুজে নাও । তুমি এক নিশ্বাসে বলে চুপ করলে ।

আমি চুপ ।
তুমি চলে যাচ্ছ । আস্তে আস্তে মানুষের ভিড়ে মিশে যাচ্ছে তোমার অবয়ব । তোমার নীল রঙের শার্ট । তোমার ভীষণ আদুরে মুখ ।
আমি বুঝতে পারলাম, আমি কাঁদছি । আমি সত্যি এত বছর পর কাঁদছি । তোমার জন্য । আমি বোধয় সত্যি তোমায় ভালবাসতাম । সত্যি ভালবাসতাম ।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s